1. [email protected] : admin :
  2. [email protected] : News 52 Bangla : Nurul Huda News 52 Bangla
সোমবার, ০৩ অক্টোবর ২০২২, ০১:১৫ পূর্বাহ্ন
সর্বশেষ সংবাদ :
কাপ্তাইয়ে পুজা মন্ডপ পরিদর্শনে দীপংকর তালুকদার এমপি কাউখালীতে জাতীয় উৎপাদনশীলতা দিবস উপলক্ষ্যে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত মেহেরপুরে সম্প্রীতি সমাবেশ অনুষ্ঠিত কাপ্তাইয়ে জুয়া খেলাকে কেন্দ্রকরে যুবককে ছুরিকাঘাত করায় ঘাতক আটক কাপ্তাইয়ে বীর মুক্তিযোদ্ধাদের মধ্যে সার্টিফিকেট ও স্মার্ট আইডি কার্ড বিতরণ কাপ্তাই উপজেলা প্রশাসনের আয়োজনে মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর জন্মদিন পালন কাপ্তাইয়ে করোনা প্রতিরোধ বিষয়ক কর্মশালা লিগ্যাল এইড সরকারি ভাবে আইনি সহায়তায় দিবে কাপ্তাইয়ে মসজিদের ইমাম খতীব ও ধর্মীয় নেতাদের নিয়ে মতবিনিময় সভায় কাপ্তাইয়ে গাঁজা ও মদসহ আটক ২ কাপ্তাইয়ে বিশ্ব পর্যটন দিবস পালন

আগামী নির্বাচনে বিএনপি না এলেও নির্বাচন গ্রহণযোগ্যতা পাবে: এরশাদ

প্রতিবেদকের নাম :
  • আপডেটের সময় : মঙ্গলবার, ২৩ জানুয়ারী, ২০১৮

আগামী জাতীয় নির্বাচনে বিএনপির সঙ্গে জোট না করার ঘোষণা দিয়ে জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ বলেছেন, ওই নির্বাচনে বিএনপি না এলেও তা গ্রহণযোগ্য হবে।

মঙ্গলবার দুপুরে রংপুর সার্কিট হাউজে সাংবাদিকদের এ কথা বলেন এরশাদ। তিনি বিএনপির সহায়ক সরকারের দাবি গ্রহণযোগ্য নয় বলেও মন্তব্য করেন।

নির্বাচন সঠিক সময়ে না হওয়ার কোনো কারণ নেই উল্লেখ করে ধানমন্ত্রীর এই বিশেষ দূত বলেন, নির্বাচন সঠিক সময়ে হবে এবং সংবিধান মতোই হবে। তার দল ওই নির্বাচনে জোটগতভাবে লড়বে, না একাই করবে সেই সিদ্ধান্ত এখনো নেননি তিনি। তবে সারা দেশে ৩০০ আসনে প্রার্থী প্রস্তুত রেখেছেন।

বিএনপির চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার মামলার প্রতি ইঙ্গিত করে সাবেক এই স্বৈরশাসক বলেন, ‘আমাকে তো ছয় বছর জেলে রেখেছে। ৪২টি মামলা দিয়েছে। জেলে থেকে নির্বাচন করেছি। তিনি (খালেদা) যদি অপরাধ করেন তাহলে শাস্তি পাবেন। আর না করলে শাস্তি পাবেন না।’
২০১৪ সালের ৫ জানুয়ারির নির্বাচন প্রসঙ্গেও কথা বলেন জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান। এরশাদ বলেন, ‘গত নির্বাচনে বিএনপি ছিল না। এবার তো আমি আছি। অতএব তারা নির্বাচনে না আসলেও আমি নির্বাচন করব এবং তা গ্রহণযোগ্যতা পাবে।’

৫ জানুয়ারির নির্বাচনে মনোনয়নপত্র জমা দেয়ার পর এরশাদ তার দলের নেতাদের নির্দেশ দিয়েছিলেন তা তুলে নেয়ার। সেই মোতাবেক অনেকে মনোনয়নপত্র প্রত্যাহার করে নেন। কিন্তু পরে নানা নাটকীয়তায় তার দলকে নির্বাচনে অংশ নিতে দেখা যায়। নির্বাচন থেকে দূরে থাকে তত্ত্বাবধায়ক সরকারের অধীনে নির্বাচনের দাবিতে আন্দোলনরত বিএনপি ও তার জোট।

বর্তমান পদ্ধতিতে রাষ্ট্রপতি হওয়ার প্রতি নিজের কোনো আগ্রহ নেই বলে জানান সাবেক এই রাষ্ট্রপতি। কেননা তার মতে, এই রাষ্ট্রপতি বন্দিজীবন কাটান। পুলিশের স্যালুটই শুধু তার পাওয়া। নিজের ইচ্ছায় বের হতে চাইলে পারেন না। কোনো রাজনৈতিক কর্মসূচিতে অংশ নিতে পারেন না।
এরশাদ বলেন, ‘আমি যদি রাষ্ট্রúতি হই তাহলে জাতীয় পার্টি থেকে বিচ্ছিন্ন হব। সুতরাং রাষ্ট্রপতি হতে চাই না। যত দিন বেঁচে আছি জাতীয় পার্টিতেই থাকতে চাই। এককভাবে দলকে ক্ষমতায় আনতে চাই। না হলে ক্ষমতার পাশাপাশি থাকবে জাতীয় পার্টি।

বর্তমান রাষ্ট্রপতি আবদুল হামিদের মেয়াদপূর্তির পরিপ্রেক্ষিতে নতুন রাষ্ট্রপতি নির্বাচনে আগামী ১৯ ফেব্রুয়ারি ভোট হবে বলে জানান আইনমন্ত্রী আনিসুল হক।

রাষ্ট্রপতি আবদুল হামিদ ২০১৩ সালের ২৪ এপ্রিল বাংলাদেশের ২০তম রাষ্ট্রপতি হিসেবে শপথ নেন। তার পাঁচ বছরের মেয়াদ শেষ হবে ২৩ এপ্রিলে। সংবিধান অনুযায়ী মেয়াদ শেষ হওয়ার আগের ৬০ থেকে ৯০ দিনের মধ্যে নির্বাচন হবে। সেই হিসাবে ভোট হতে হবে ২৪ জানুয়ারি থেকে ২৩ ফেব্রুয়ারির মধ্যে।

অনুষ্ঠানে স্থানীয় সরকার মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী মসিউর রহমান রাঙ্গা, দলের কো-চেয়ারম্যান জি এম কাদের, রংপুর সিটি মেয়র মোস্তাফিজার রহমান মোস্তফা, মহানগর জাতীয় পার্টির সদস্যসচীব এস এম ইয়াসির প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এই বিভাগের আরও খবর
2019 All rights reserved by |Dainik Donet Bangladesh| Design and Developed by- News 52 Bangla Team.
Theme Customized BY News52Bamg;a